ঝুলন্ত সেতু ধসে নি’হত অন্তত ৩০, আ’রও বাড়ার আ’শঙ্কা

ভারতের গুজরাটের মরবিতে এক দশকের পুরোনো ঝুলন্ত সেতু ভেঙে পড়ে অন্তত ৩০ জ’নের মৃ’ত্যু হয়েছে। এ ঘ’টনায় নদীতে তলিয়ে যাওয়া অন্যান্যদের খোঁ’জে অভি’যান চলছে। গত ২৬ অক্টোবর সেতুটি সং’স্কার করে জনসাধা’রণের জন্য খুলে দেওয়া হয়েছিল। ভারতীয় গণমাধ্যমগুলো জানায়, রোববার সন্ধ্যার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

গুজরা’টের শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রী ব্রি’জেশ মের্জা এনডি’টিভিকে বলেন, গত সপ্তাহে সেতুটি সংস্কা’র করা হয়েছে। আমরাও হতবাক। আমরা বিষয়টি খতি’য়ে দেখছি। সরকার এই ট্র্যাজে’ডির জন্য দায় নেবে।
খবরে বলা হয়, এখনও প্রায় ১০০ জন পা’নিতে আ’টকে পড়ে আছেন বলে আশ’ঙ্কা করা হচ্ছে।

মের্জা এনডিটিভিকে বলেন, ৩০ জ’ন মারা গেছে। তিনি এনডিটিভি’কে দেওয়া একান্ত সাক্ষাৎ’কারে বলেন, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলেছেন। সব শীর্ষ সরকারি কর্মকর্তারা মাঠে রয়েছেন।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি আজ গুজরাটে রয়েছেন। রাজ্যের ‘স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী হর্ষ সাঙ্ঘভি মর’বিতে রওনা হয়েছেন।
প্রধানমন্ত্রীর জা’তীয় ত্রাণ তহবিল থেকে নি’হত প্র’ত্যেকের পরিবারের জন্য ২ লাখ রুপি করে ক্ষতিপূরণ ঘোষণা করা হয়েছে। আ’হত ব্য’ক্তিদের ৫০ হাজার রুপি করে দেওয়া হবে। রাজ্য সরকার প্রত্যেক নিহতের পরিবারকে ৪ লাখ রুপি এবং আ’হতদের ৫০ হা’জার রুপি করে ক্ষতি’পূরণ দেবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *